Wednesday April14,2021

নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার জানিয়েছেন, আগামীকাল রোববার পৌর নির্বাচনের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বজায় রাখার জন্য সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। আমরা আশা করছি, একটা ফ্রি, ফেয়ার, পার্টিসিপেটরি ও উৎসবমুখর পরিবেশে একটি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে আগারগাঁওয়ের নির্বাচন ভবনে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি।

রোববার ২৯টি পৌরসভায় সাধারণ ও ৪টি উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে চলবে ভোটগ্রহণ। এসব নির্বাচনে সহিংসতার বিষয়টি নজরে আনলে সচিব বলেন, ‘যেখানেই সমস্যা হচ্ছে সেখানেই ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। যেসব বিষয়গুলো আমরা জানতে পারছি, সেগুলো মাঠে আমাদের আইনশৃঙ্খলায় দায়িত্বে যারা আছেন, তাদেরকে ব্যবস্থা নিতে বলে দিচ্ছি।’

সাংবাদিকদের আরেক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘নির্বাচনে সহিংসতায় মারা যাওয়া অবশ্যই দুঃখজনক। তবে আমরা আশা করছি, আগামী দিনে এ ধরনের ঘটনা আর ঘটবে না। এটাই আমাদের আশা, এটাই আমাদের প্রত্যাশা। আমরা ওয়েট করি, দেখি।’

এবার বিশেষ কি উদ্যোগ বা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আপনারা জানেন, আমাদের নীতিমালা অনুযায়ী কোথায় কতজন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য মোতায়েন করা হবে, কিভাবে হবে এটির একটি গাইড লাইন আছে। সে অনুযায়ী আমরা হোম মিনিস্ট্রিকে বলেছি। সে অনুযায়ী উনারা নিয়োগ দিয়েছেন। আমরা আশা করছি- আগামী নির্বাচন ভালো হবে।’

ভোটারদের ভোটকেন্দ্রে আসার মতো পরিবেশ তৈরি করা গেছে কি-না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমরা আশা করি, সেই পরিবেশ তৈরি করা করা গেছে। আমরা কিছুক্ষণ আগেও রিটার্নিং অফিসারদের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা জানিয়েছেন যে, সিচুয়েশন ভালো।’

‘যেহেতু আমরা এবার সব পৌরসভায় ইভিএমের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ করছি, সুতরাং ব্যালট পেপার ছেড়া-ছিঁড়ির কোনো বিষয় নেই। এবার ইভিএমের মাধ্যমে ভোট হবে। যার ভোট শুধু তিনি ভোট দিতে পারবেন।’