Monday April12,2021

চতুর্থ স্ত্রীর দায়ের করা নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় গ্রেফতার হয়েছেন আলোচিত বক্তা হাসানুর রহমান হুসাইন নক্সেবন্দী। শুক্রবার দুপুর আড়াইটার দিকে কমলাপুর থেকে সিলেট মাহফিলে যাওয়ার গাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়।

মতিঝিল থানার এসআই হেলাল আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। আটকের পর তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ভুক্তভোগী স্ত্রীর আইনজীবী অ্যাডভোকেট খন্দকার ইরফান জানান, বিয়ের সময় হাসানুর রহমান হুসাইন নক্সেবন্দী তার চতুর্থ স্ত্রীর নিকট থেকে ৩ লাখ টাকা যৌতুক হিসেবে নেন। পরবর্তী আরো ৫ লাখ টাকা যৌতুকের জন্য স্ত্রীর ওপর অমানুষিক নির্যাতন চালাতে থাকেন। গত বছরের ১৮ জুন প্রথমে তিনি যাত্রাবাড়ী থানায় একটি জিডি দায়ের করেন। জিডির বলে যাত্রাবাড়ী থানা পুলিশ তাকে থানায় নিয়ে আসে। এরপর অঙ্গিকার নামা নিয়ে ছেড়ে দেন। থানা পুলিশকে দেয়া অঙ্গিকারের পরও নির্যাতন অব্যাহত থাকে। এরই প্রেক্ষিতে ভুক্তভোগী গত ৩ জানুয়ারি নারী ও শিশু ট্রাইব্যুনাল -ঢাকা- ৩ এ একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

আদালত অভিযোগ আমলে নিয়ে বিচার বিভাগীয় তদন্তের জন্য নির্দেশ দেন। পরবর্তী তদন্তে ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় গত ১১ ফেব্রুয়ারি তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি করেন আদালত।

তিনি আরো বলেন, শুক্রবার দুপুরের পর মতিঝিল থানার এসআই হেলালের নেতৃত্বে থানা পুলিশের একটি দল তাকে গ্রেফতার করে।

এদিকে হাসানুর রহমান হুসাইন নক্সেবন্দীর বিরুদ্ধে আরো দুই স্ত্রীর মামলা রয়েছে। সেগুলো চলমান রয়েছে।