Thursday January21,2021

শেখ মোহাম্মাদ সেলিম হাফিজিয়া মাদ্রাসার সভাপতি বাপ্পী,সাধারণ সম্পাদক আডডু

নিজস্ব প্রতিবেদক:  রাজধানীর পল্লবীর শেখ মোহাম্মাদ সেলিম হাফিজিয়া মাদ্রাসার নতুন কমিটির সভাপতি হয়েছেন ডিএনসিসিরি ৬ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক তাইজুল ইসলাম চৌধুরী বাপ্পী ও সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন পল্লবী থানা যুবলীগের নেতা শেখ মোহাম্মাদ আলি আড্ডু।

গত ৫ জানুয়ারি ( মঙ্গলবার) ঢাকা ১৬ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ তাইজুল ইসলাম চৌধুরী বাপ্পীকে সভাপতি ও শেখ মোহাম্মাদ আলি আড্ডুকে সাধারণ সম্পাদক করে এ কমিটি ঘোষণা দেন।

ঢাকা আইনজীবী সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটির সাবেক সদস্য, সাবেক সফল ট্রেজারার আইনজীবি আলহাজ্ব শেখ মোহাম্মদ সেলিমের নামে এ মাদরাসার নামকরণ করা হয়েছে। শেখ মোহাম্মাদ সেলিম পারিবারিকভাবেই আওয়ামী রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন। দলীয় নেতাকর্মীদের অত্যন্ত প্রিয়জন ছিলেন তিনি। ৫ বছর আগে অসুস্থতার কারণে পৃথিবী থেকে চিরবিদায় নেন শেখ মোহাম্মাদ সেলিম। ২০১৭ সালে বড় ভাইয়ের নামে এ মাদ্রাসা প্রতিষ্ঠা করেন পল্লবী থানা যুবলীগের নেতা শেখ মোহাম্মাদ আলি আড্ডু। বিনা বেতনে ভর্তির পড়ার সুযোগ অভিভাবকরা নিজের সন্তানদের ভর্তি করাচ্ছেন শেখ মোহাম্মাদ সেলিম হাফিজিয়া মাদরাসাতে। এখানে ১৪৫ জনের মতো বাচ্চারা পড়াশুনা করে।

নতুন কমিটির বিষয়ে নবনির্বাচিত সভাপতি তাইজুল ইসলাম চৌধুরী বাপ্পী বলেন, ঢাকা ১৬ আসনের সাংসদ আলহাজ্ব ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ এ হাফিজিয়া মাদরাসা পরিচালনার দায়িত্ব আমাদের দিয়েছেন। আমরা চেষ্টা করবো এ মাদরাসাকে আরো উন্নত করার। হিফজ খানার পাশাপাশি মাদরাসা বোর্ডে অন্তর্ভূক্ত করে আরো সুযোগ-সুবিধা বাড়ানোর পরিকল্পনা আমাদের রয়েছে।

তিনি বলেন, মাদ্রাসাগুলো সৎ, যোগ্য, দক্ষ, দেশপ্রেমিক ও নৈতিকগুণ সম্পন্ন নাগরিক গড়ে উঠার কারখানা। তাছাড়া প্রতি মূহুর্তে মাদরাসায় নৈতিক শিক্ষা ও ইসলামী মূল্যবোধ সম্পর্কে শিক্ষা দেয়। অনেকেই সপ্ন দেখেন নিজের সন্তানকে কোরআনে হাফিজ বানাবেন। কিন্তু অর্থের কারণে সেটি সম্ভব হয়না। যারা নিজের সন্তানকে পবিত্র কোরাআনের শিক্ষায় আলোকিত করতে চান তাদের জন্য শেখ মোহাম্মাদ সেলিম হাফিজিয়া মাদরাসাতে সম্পূর্ণ ফ্রিতে কোরআন শিক্ষা নেওয়ার সুযোগ রয়েছে। এখানে পড়াশুনার পাশাপাশি থাকা-খাওয়ার ব্যবস্থাও রয়েছে। এই মাদরাসায় দারিদ্র ও মধ্যবিত্ব পরিবারের শিক্ষার্থিদের বাচ্চারা ইসলামি দিয়ে মহান আল্লাহকে খুশি করা এবং এর সওয়াব আমাদের প্রয়াত নেতা শেখ মোহাম্মাদ সেলিম ভাইয়ের কাছে পৌঁছানোটাই আমাদের মূল লক্ষ্য।