Thursday January21,2021

স্কুলছাত্রী ধর্ষণ-হত্যা : সিসি ক্যামেরার ফুটেজে ৩ ব্যক্তির রহস্যজনক গতিবিধি

মাস্টারমাইন্ড স্কুলছাত্রীর মৃত্যুর ঘটনায় অভিযুক্ত দিহানকে আগেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আর এ ঘটনায় আটক করে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে দিহানের কলাবাগান বাসার দারোয়ান দুলালকেও। উদ্ধার করা হয়েছে বাসাটির সিসি ক্যামেরার ফুটেজ।

সিসি ক্যামেরার ফুটেজ বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, গত ৭ জানুয়ারি দিহানের বাসাটিতে প্রায় দেড় ঘণ্টা অবস্থান করেছিল আনুশকা। এ সময় তিন ব্যক্তির রহস্যজনক গতিবিধির উপস্থিতি পাওয়া গেছে। পুলিশ ধারণা করছে, মাদকের পরিণতিতেই এমন ঘটনা ঘটতে পারে।

ওই ফুটেজে আরও দেখা যায়, ওই দিন দুপুর ১২টা ১২ মিনিটে দিহানের বাসার সিঁড়িঘরের দিকে যায় আনুশকা। দুপুর একটার দিকে বাসার সামনে রহস্যজনক গতিবিধির দেখা মেলে তিন ব্যক্তির। প্রায় দেড় ঘণ্টা পর দুপুর ১টা ৩৬ মিনিটে বাসা থেকে বের হয় দিহানের গাড়ি।

ডিএমপির নিউমার্কেট জোনের এসি আবুল হাসান বলেন, ‘ঘটনাস্থলের আশপাশের পুরো এলাকার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ আমরা বিশ্লেষণ করে দেখেছি। পাশাপাশি দিহানের ওই তিন বন্ধুর মোবাইল নম্বর ট্র্যাক করে ঘটনার সময় তারা কোথায় ছিল সেই লোকেশনও বের করা হয়েছে। সবকিছু মিলিয়ে তাদের সংশ্লিষ্টতা না পাওয়ায় আমরা ছেড়ে দিয়েছি। তবে তারা নজরদারির বাইরে নয়। প্রয়োজনে তাদের আবার হেফাজতে নেওয়া হবে।’

এ বিষয়ে ডিএমপির রমনা বিভাগের ডিসি মো.সাজ্জাদুর রহমান বলেন, ‘ঘটনাটির সত্যতা যাচাইয়ে আমরা প্রত্যক্ষদর্শী হিসেবে দারোয়ানকে হেফাজতে নিয়েছি। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তার কাছে পাওয়া তথ্য যাচাই-বাছাই করে পরে জানানো হবে। এছাড়া আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী দুই এক দিনের মধ্যে দিহানের ডিএনএ নমুনা সংগ্রহ করা হবে।’