Monday April12,2021

করোনা ভাইরাসে বুধবার একদিনে আরো ৯৫২ জন মারা যাওয়ার পর কঠোর লকডাউন শুরু হয়েছে জার্মানিতে। বন্ধ করে দেয়া হয়েছে সব স্কুল। অপ্রয়োজনীয় বাণিজ্য বন্ধ রাখারও উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। সেখানে বুধবারই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ২৭ হাজার ৭২৮ জন। এরপর আগামী ১০ই জানুয়ারি পর্যন্ত কঠোরতা ঘোষণা করা হয়। তবে বড়দিন উপলক্ষে কিছুটা শিথিল করা হতে পারে সেই বিধিনিষেধ। এর অধীনে কোনো পরিবারের ঘনিষ্ঠ সর্বোচ্চ চারজন সদস্য বা অতিথিকে বাসায় আপ্যায়িত করতে অনুমতি দেয়া হয়েছে। এ ছাড়া ইউরোপের অন্য দেশগুলোতেও বড়দিনকে সামনে রেখে বিধিনিষেধ কঠোর করা হয়েছে।

ফ্রান্সে তো নৈশকালীন কারফিউ দেয়া হয়েছে। জার্মানিতে নতুন বিধিনিষেধের অধীনে শুধু অত্যাবশ্যকীয় এমন সুপারমার্কেট এবং ব্যাংক খোলা রাখার অনুমোদন দেয়া হয়। নভেম্বর থেকে সেখানে রেস্তোরাঁ, বার এবং অবকাশ যাপন কেন্দ্রগুলো বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। দেশটির কিছু কিছু এলাকায় স্থানীয় পর্যায়ে আরোপ করা হয়েছে লকডাউন। এ খবর দিয়ে অনলাইন বিবিসি বলছে, নতুন বিধিনিষেধের অধীনে সেলুন পর্যন্ত বন্ধ রাখতে হবে। খোলামেলা স্থানে এলকোহল বা মদ পান নিষিদ্ধ করা হয়েছে। কোম্পানিগুলোর কর্মীদের বাসায় বসে কাজ করতে উৎসাহিত করা হয়েছে। এদিকে জার্মান স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঘোষণা দিয়েছেন ২৩ শে ডিসেম্বরের মধ্যে ইইউ করোনা টিকার অনুমোদন লাভ করবে ।