Friday March5,2021

করোনার দ্বিতীয় ঢেউ ঠেকাতে বারবার মাস্ক ব্যবহার কথা বলা হলেও তা মানছেন না অনেকে। এবার মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করতে রাজধানীতে অভিযান শুরু করেছে র‌্যাব। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে চারটি স্পটে একসঙ্গে চলে এই অভিযান। স্পটগুলো হলো—শাহবাগ মোড়, ফার্মগেট মোড়, সিটি কলেজ মোড় ও মিরপুর।

এ সময় মাস্ক না পরায় শাহবাগ এলাকায় ৩১ জনকে জরিমানা করা হয়েছে। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন র্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক লে. কর্নেল আশিক তিনি জানান, মাস্ক না পরলে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে জরিমানা, করোনা বিষয়ে জনসচেতনতা সৃষ্টি ও মাস্ক বিতরণ করা হবে।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে সবার মাস্ক পরিধান নিশ্চিত করতে গতকাল সকাল সাড়ে ১১টায় শাহবাগে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসুর নেতৃত্বে অভিযান শুরু করা হয়। চলে বেলা আড়াইটা পর্যন্ত। এ সময় জনসাধারণের মাঝে বিনা মূল্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়।

পলাশ কুমার বসু বলেন, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ ঠেকাতে সরকারি নির্দেশনা অনুসারে মাস্ক পরা নিশ্চিত করা ও জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে অভিযান চালানো হয়েছে। প্রায় ৯ মাস অতিক্রম করেছে এই করোনা মহামারি। এখন মানুষ অনেকটা সচেতন। তার পরও যারা সচেতন হচ্ছেন না তাদের জরিমানা করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, শাহবাগে অভিযান পরিচালনাকালে দেখা যায়, ডাক্তার লেখা একটি প্রাইভেটকারের চালক মাস্ক ছাড়াই গাড়ি চালাচ্ছেন। মাস্ক না পরায় তাকে ৩০০ টাকা জরিমানা করা হয়। একই সঙ্গে তাকে বিনা মূল্যে একটি মাস্ক দেওয়া হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, মাস্ক না পরায় শাহবাগে চালানো অভিযানকালে ৩১ জনকে জরিমানা করা হয়েছে। এর মধ্যে জরিমানার হার ২০০ থেকে ৫০০ টাকা পর্যন্ত। মানুষ সচেতন না হলে আরো বড় ধরনের অভিযান চালানো হবে। শাহবাগের পাশাপাশি ফার্মগেট, সিটি কলেজ এলাকা ও মিরপুরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালায় র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটগণ।

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় সরেজমিনে দেখা যায়, দিনমজুর, রিকশাওয়ালা গাড়িচালকসহ অনেকে মাস্ক ব্যবহার করছেন না। তাদের মধ্যে বিনা মূল্যে মাস্ক বিতরণ করে র্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত।