ফারুকের শারীরিক অবস্থার উন্নতি, স্ত্রীকে নিয়ে ভয়

ঢাকাই চলচ্চিত্রের জীবন্ত কিংবদন্তি নায়ক ও ঢাকা-১৭ আসনের সাংসদ ফারুক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। গত সোমবার (১৬ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৬টায় কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে তাকে ভর্তি করা হয়েছে। এখনও তিনি সেখানেই চিকিৎসা নিচ্ছেন। তবে আগের তুলনায় অনেকটাই সুস্থ তিনি। কিন্তু এই অভিনেতা তার সহধর্মিনী ফারহানা ফারুককে নিয়ে ভয়ে আছেন।

করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে নায়ক ফারুকের সেবা-যত্নে আছেন তার স্ত্রী। যে কারণেই স্ত্রীকে নিয়ে ভয়ে আছেন এই অভিনেতা। আজ স্ত্রীর করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা নেয়া হয়েছে বলে জানান নায়ক ফারুক।

কিছুদিন আগে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে ঢাকায় ফেরেন ফারুক। এরপর বেশ ভালোই ছিলেন। হঠাৎ তার শরীর খারাপ হয়। করোনা পরীক্ষা করালে রেজাল্ট পজেটিভ আসে।

সিঙ্গাপুরে যাওয়ার আগে তার নিয়মিত জ্বর আসত। কিন্তু এর কারণ ঠিক বুঝে উঠতে পারছিলেন না চিকিৎসকরা। গত ১৩ সেপ্টেম্বর উন্নত চিকিৎসার জন্য ফারুককে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

হাসপাতালটি কর্তৃপক্ষ জানায়, এই বরেণ্য অভিনেতা টিবি রোগে আক্রান্ত। সুস্থ হওয়ার পর সম্প্রতি দেশে ফেরেন তিনি। সাত বছর ধরে সিঙ্গাপুরের এ হাসপাতালেই নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষা করিয়ে আসছেন এই শিল্পী।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: