Advertisements

ফের কিমের মৃত্যু নিয়ে জল্পনা, পিয়ংইয়ংয়ে বড় ঘোষণার প্রস্তুতি!

সপ্তাহ-খানেকের অজ্ঞাতবাসের পর জনসমক্ষে এসেছেন তিনি। তার অজ্ঞাতবাস ঘিরে কম জল্পনা হয়নি। তবে সব জল্পনা উড়িয়ে দিয়ে প্রকাশ্যে এসেছিলেন উত্তর কোরিয়ার (North Korea) স্বৈরাচারী শাসক কিম জং উন (Kim Jong-Un)। কিন্তু, তাতে বন্ধ হয়নি কানাঘুষা। তাকে নিয়ে বিতর্ক আজও চলছে। এবার ফের একবার জল্পনায় কিম জং উনের প্রয়াণের খবর। সাম্প্রতিক রিপোর্টে দাবি, পিয়ংইয়ংয়ে (Pyongyang) কোনও বড় ঘোষণার প্রস্তুতি চলছে। যা কিমের শারীরিক পরিস্থিতি নিয়েও হতে পারে বলে দাবি।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি পিয়ংইয়ং শহরের মেইন স্কোয়ার থেকে সরানো হয়েছে কিম জং উনের পিতামহ কিম জং-ইল এবং বাবা কিম ইল সাং-এর ছবি সরানো হয়েছে। NK নিউজ সূত্রে দাবি করা হয়েছে, ‘স্যাটেলাইট ছবিতে উত্তর কোরিয়ার দুই প্রাক্তন নেতার ছবি সরাতে দেখা গেছে।’

ব্রিটেনের এক সংবাদমাধ্যমকে আন্তর্জাতিক সাংবাদিক রয় ক্যালি জানিয়েছেন, ‘শেষবার এমনটা হয়েছিল, যখন উত্তর কোরিয়ার কোনও শীর্ষ নেতার মৃত্যু হয়।’ তার মতে, ‘বেজিংয়ের স্কোয়ারের মতোই আকারে বিশাল পিয়ংইয়ংয়ের ওই এলাকা। তা আরও বর্ধিত হচ্ছে, এই দাবি মানা যায় না। আমার ধারণা, ওরা আরেকটি ছবি বসানোর চিন্তাভাবনা করছে। তবে ছবি সাধারণত রাষ্ট্রনেতা প্রয়াত হলেই বসানো হয়।’ আর এর থেকেই শুরু হয়েছে তীব্র জল্পনার। তবে কি প্রয়াত হয়েছেন কিম জং উন?

এটা অজানা নয়, অত্যধিক ধূমপান, স্থূলতা-সহ বেশ কিছু সমস্যা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই ভুগছিলেন কিম জং উন। তার উপর রয়েছে মাত্রাতিরিক্ত কাজের চাপ। সংবাদমাধ্যমগুলিতে দাবি, এর জেরেই হৃদযন্ত্রে অস্ত্রোপচার এবং তারপর থেকেই গুরুতর অসুস্থ ছিলেন কিম জং উন (Kim Jong Un)। যদিও কিমের অস্ত্রোপচার সম্পর্কিত দাবি সত্যি না মিথ্যা, তা নিয়ে কোনও বিবৃতি আসেনি পিয়ংইয়ং থেকে। প্রসঙ্গত, শাসকদলের ৭৫ তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষেও প্রস্তুতি হতে পারে বলেও মনে করছেন রাষ্ট্রবিজ্ঞানীদের একাংশ। সূত্র : এই সময়।

Advertisements

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: