Friday April16,2021

তিউনিশিয়ার উপকূলে নৌকাডুবিতে নিহতদের মধ্যে ৩০-৩৫ জন বাংলাদেশি

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন জানিয়েছেন, তিউনিশিয়ার উপকূলে নৌকাডুবিতে নিহতদের মধ্যে ৩০-৩৫ জন বাংলাদেশি। এছাড়া তিনি জানান নৌকাডুবির ঘটনায় ১৪ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে, তাদের মধ্যে বাংলাদেশি আছে কিনা সেটাও খোঁজ-খবর নেওয়া হচ্ছে।

রোববার (১২ মে) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে মন্ত্রী এসব জানান।

লিবিয়া থেকে ইতালি যাওয়ার পথে তিউনিসিয়া উপকূলে নৌকাডুবির ঘটনায় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বিভিন্ন মাধ্যমে আমরা জানতে পেরেছি নৌকাটি তিউনিসিয়া উপকূলে ডুবে গেছে, সেখানে প্রায় ৭৫ জন যাত্রী ছিলেন। তার মধ্যে ৫১ জন ছিলেন বাংলাদেশি যাত্রী। এদের মধ্য থেকে ৩০-৩৫ জন বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন বলে আমরা জানতে পেরেছি। এছাড়া ১৪ জন যাত্রীকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। এদের মধ্যে বাংলাদেশি কতজন রয়েছেন, সে বিষয়ে খোঁজ খবর নেওয়া হচ্ছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, লিবিয়ায় জনশক্তি পাঠানো বন্ধ রয়েছে। তবে মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশ হয়ে লিবিয়া উপকূল থেকে নৌকাযোগে ইউরোপে প্রবেশ করছেন অনেক বাংলাদেশি। আদম ব্যবসায়ীরা তাদের নিয়ে যাচ্ছেন। আর সেখানে যাওয়ার সময় প্রায়ই এমন দুর্ঘটনা ঘটছে।

ড. মোমেন বলেন, বাংলাদেশ থেকে লোকজন কোথায় কীভাবে যাচ্ছেন, যাওয়ার সময় ইমিগ্রেশন বিভাগের আরো খোঁজ-খবর নেওয়া উচিত। এছাড়া বিদেশে অবস্থান করছেন যেসব বাংলাদেশি তারা আমাদের মিশনে নিবন্ধন করেন না। তাই লোকজনকে সচেতন হতে হবে।

নৌকাডুবির ঘটনায় লিবিয়া থেকে আমাদের দূতাবাস খোঁজ-খবর নিচ্ছেন। তারা সেখানে যাচ্ছেন। খোঁজ-খবর নেওয়ার পর আমরা প্রকৃত ঘটনা জানতে পারবো।

গত ৯ মে গভীর রাতে লিবিয়া উপকূল থেকে ৭৫ জন অভিবাসীবাহী একটি বড় নৌকা ইতালি পাড়ি জমায়। নৌকাটি তিউনিসিয়া উপকূলে ডুবে গেলে বেশির ভাগ যাত্রী নিহত হন।
শুদ্ধস্বর/এন.হাসান