Friday April16,2021

মোদিকে সবচেয়ে বেশি স্মরণ করা হবে দাঙ্গাবাজদের প্রহারে মানুষ হত্যার জন্য

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে সবচেয়ে বেশি স্মরণ করা হবে দাঙ্গাবাজদের প্রহারে মানুষ হত্যার জন্য। এমন অভিযোগ করেছেন ভারতের এআইএমআইএম প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়েইসি। তেলেঙ্গানা রাজ্যে লোকসভার মোট আসন ১৭টি। এখানে নির্বাচনী প্রচারণা শেষ হয়েছে মঙ্গলবার। ভোট শুরু হবে ১১ই এপ্রিল। তাই প্রচারণার শেষ দিন আসাদুদ্দিন ওয়েইসি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ঘায়েল করেছেন। তিনি প্রশ্ন তুলেছেন, নরেন্দ্র মোদি কি সবার জন্য কথা বলেছেন? আবার নিজেই সেই প্রশ্নের জবাব দিয়েছেন আসাদুদ্দিন। তিনি বলেছেন, না, মোদি তা করেন নি।

যারা রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের আদর্শে বিশ্বাসী তিনি শুধু তাদেরই চৌকিদার। এ খবর দিযেছে ভারতের অনলাইন দ্য স্টেটসম্যান।

আসামে শওকত আলী নামে একজন মুসলিমকে গরুর মাংস বিক্রি করার অভিযোগে সম্প্রতি প্রহার করেছে দাঙ্গাবাজরা। এক পর্যায়ে তাকে কাঁচা মাংস ভক্ষণ করতে বাধ্য করে তারা। নানা রকম অপমানজনক কথা বলতে থাকে। ওই নির্যাতনের একটি ভিডিও ক্লিপও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক ওয়েবসাইটগুলোতে। এ বিষয়টির দিকে ইঙ্গিত করে আসাদুদ্দিন ওয়েইসি বলেছেন, একজন মুসলিমকে প্রহার করা হয়েছে। দাঙ্গাবাজরা গরুর মাংস বিক্রির অভিযোগে তাকে শূকরের মাংস ভক্ষণ করতে বাধ্য করেছে। ওয়েইসি আরো বলেন, এই ঘটনা থামাতে না পারার যন্ত্রণা মোদিকে সারাজীবন বয়ে বেড়াতে হবে।
তিনি আরো বলেন, মোদির লিগেসি হবে তিনি প্রধানমন্ত্রী থাকা অবস্থায় দাঙ্গাবাজদের হাতে প্রহৃত হয়ে মানুষ মৃত্যুর ঘটনা সর্বাধিক ছিল এবং তিনি তা থামাতে পারেন নি। দাঙ্গাবাজদের হাতে মানুষ হত্যার জন্য তিনি স্মরণীয় হয়ে থাকবেন। মোদি গরিব মানুষ, পিছিয়ে পড়া, দলিত শ্রেণির মানুষদের চৌকিদার নন। তিনি হলেন ধনীদের চৌকিদার।

আসাদুদ্দিন ওয়েইসি বলেন, দেশ অনেক বড়। মোদি অনেক ছোট। আমাদের সংবিধান অনেক বড়। মোদি তার তুলনায় অনেক ছোট। সবার সংস্কৃতি অনেক বড়। কিন্তু মোদি তা বিশ্বাস করেন না।

শুদ্ধস্বর/এন.এইচ